জামায়াত-বিএনপির ষড়যন্ত্র পাড়া-মহল্লায় হবে প্রতিহত

নিখিল -২০

যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মো। মইনুল হোসেন খান নিখিল বলেন, স্বাধীনতাবিরোধী শক্তি জামায়াত-বিএনপির ষড়যন্ত্র এখনও চলছে। আগস্ট আসার সাথে সাথে তারা ষড়যন্ত্র শুরু করে। 21 আগস্ট মাস্টার মাইন্ড তারেক রহমান বিদেশে পালাচ্ছেন। সেখানে বসে তিনি দেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছেন। হত্যা-সন্ত্রাসবাদী কার্যক্রম চালানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। যুবলীগের প্রতিটি কর্মী ষড়যন্ত্র বন্ধে সজাগ। যুবলীগ পাড়া থেকে জামায়াত-বিএনপির ষড়যন্ত্রকে প্রতিহত করবে।

সোমবার কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে যুবলীগের মাসব্যাপী রান্না করা খাবার বিতরণের শেষ দিনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। ১৫ ই আগস্ট জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে যুবলীগের উদ্যোগে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার, পান্থপথ কুঞ্জ ও ২৩ বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে প্রতিদিন প্রতিদিন দুপুরে খাদ্য বিতরণ করা হয়েছে। গত 31 দিনে, 20,000 প্যাকেট খাবার বিতরণ করা হয়েছে।

যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক বলেছিলেন, “আমরা একই সুতো বেঁধেছিলাম 15 আগস্ট, 1975, 21 আগস্ট, 2004 এবং 16 আগস্ট, 2005.” জিয়াউর রহমান বঙ্গবন্ধু হত্যার সাথে জড়িত ছিলেন, যা আজকের দিনের মতো সত্য। তাই জিয়াউর রহমানের মরণোত্তর বিচারের মুখোমুখি হওয়ার সময় এসেছে। জিয়ার পথ অনুসরণ করে বেগম খালেদা এবং তারেক রহমান ২১ আগস্ট নেত্রীসহ আওয়ামী লীগের সিনিয়র নেতাদের হত্যার জন্য গ্রেনেড হামলা শুরু করেন। তারেক রহমান তখনও বিদেশে বসে নেতাকে হত্যার ষড়যন্ত্র করছেন। যুবলীগ তাকে দেশে ফিরিয়ে এনে রায় বাস্তবায়নের দাবি করছে।

মইনুল হোসেন খান নিখিল বলেছেন, মানবতার কল্যাণে unityক্যে কাজ করার লক্ষ্যে বঙ্গবন্ধুর নির্দেশে শেখ ফজলুল হক মনি যুবলীগ প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল। আমাদের সৌভাগ্য এই যে যুবলীগ তার ছেলে শেখ ফজলে শামস পরশের নেতৃত্বে মানবতার কল্যাণে কাজ করছে।

যুবলীগের প্রতিটি কর্মীকে রাষ্ট্রীয় নেতা শেখ হাসিনার ভ্যানগার্ড হিসাবে মানবতার সর্বোচ্চ ত্যাগ স্বীকার করতে অবশ্যই প্রস্তুত থাকতে হবে।

অন্যান্যের মধ্যে যুবলীগের তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রাক্তন উপ-সচিব উপস্থিত ছিলেন। শামসুল আলম অনিক, যুবলীগের সৈয়দ আলাউল ইসলাম সৈকত, এস এম জাবেদ হোসেন লাভলু, সাফিউল আলম প্রধান কমল, মাহবুব আল গণি সোহেল প্রমুখ।

এউএ / এমএআর / এমএস