সুনামগঞ্জে আবারও বন্যার রূপ ধারণ করতে পারে

সুনামগঞ্জ

হাওরের প্রধান জেলা সুনামগঞ্জে তৃতীয়বারের মতো অবিচ্ছিন্ন বৃষ্টিপাত এবং ভারতের পার্বত্য ofালে প্রভাবের কারণে বিভিন্ন নদীর জলের স্তর বৃদ্ধি পেতে শুরু করেছে।

সোমবার সকালে বৃষ্টি শুরু হওয়ার পর থেকে সুনামগঞ্জের সুরমা নদীর পানি নগরীর শোলঘর পয়েন্টে বিপদসীমার। সেন্টিমিটার উপরে প্রবাহিত হচ্ছে।

পানি উন্নয়ন বোর্ডের সূত্রে জানা গেছে, সোমবার সকালে সুরমা নদীর জলের স্তর বিপদসীমা থেকে ৩ সেন্টিমিটার উপরে থাকলেও তা দুপুরে ৯ সেন্টিমিটার বেড়ে যায়। পরে বিকেলে বৃষ্টিপাত কম হওয়ায় সুরমাতে পানির স্তর হ্রাস পেতে শুরু করে। যা সোমবার সন্ধ্যা until টা অবধি 7 সেন্টিমিটার বিপদে প্রবাহিত হচ্ছে। গত 24 ঘন্টার মধ্যে সুনামগঞ্জে মোট বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে 72 মিমি। এছাড়াও, চেরাপুঞ্জিতে গত 24 ঘন্টা মোট 328 মিমি বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে।

অন্যদিকে, সুনামগঞ্জে নদীর তৃতীয়বারের মতো নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকায় জল বিকাশ বোর্ড আবারও বন্যার পরিস্থিতির আশঙ্কা করছে। আগামী ২-৩ দিন বৃষ্টিপাত অব্যাহত থাকলে সুনামগঞ্জ আবার বন্যার মুখোমুখি হতে পারে বলে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে।

এদিকে সুনামগঞ্জের তৃতীয় বন্যার মোকাবেলায় জেলা প্রশাসন প্রস্তুত রয়েছে। বন্যার মোকাবেলায় লোকেরা যাতে কন্ট্রোল রুমসহ আশ্রয়কেন্দ্রে যেতে পারে সে লক্ষ্যে ইতিমধ্যে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মো। সাবিবুর রহমান জানান, ভারতের সুনামগঞ্জ ও পাহাড়ী opলে ধারাবাহিকভাবে বৃষ্টির কারণে সুনামগঞ্জের কয়েকটি নদীর জলের স্তর বৃদ্ধি পাচ্ছে। এ জাতীয় বৃষ্টিপাত অব্যাহত থাকলে আবারও বন্যার ঝুঁকি রয়েছে।

জেলা প্রশাসক মো। আবদুল আহাদ বলেন, তৃতীয়বারের মতো পানির স্তর বেড়ে যাওয়ায় সুনামগঞ্জে বন্যার মোকাবিলার জন্য সকল প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। আমরা ইতিমধ্যে বন্যার ক্ষতিগ্রস্থদের জন্য খাদ্য ও আশ্রয়সহ প্রয়োজনীয় সকল পদক্ষেপ নিয়েছি।

মোসাইদ রাহাত / এমএএস / পিআর