বন্যা নিয়ন্ত্রণে খনন হচ্ছে ৫০০ খাল, পরিকল্পনায় আরও ৫০০

পানি-1

পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী কর্নেল (অব।) জাহিদ ফারুক বলেছেন, “বন্যার পানিকে ত্বরান্বিত করতে দেশে ৫০০ খাল খনন করা হচ্ছে এবং আরও ৫০০ খাল খননের পরিকল্পনা রয়েছে।”

শুক্রবার (১৪ আগস্ট) সকালে বরিশালের সদর উপজেলার সায়েস্তাবাদ ইউনিয়নের দক্ষিণ চরাইচা গ্রামে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচির উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, প্রথম পর্যায়ে 64৪ টি জেলায় ৫০০ খাল খনন করা হচ্ছে। ইতিমধ্যে এই প্রকল্পের 80 শতাংশ কাজ শেষ হয়েছে। পুরো প্রকল্পের শেষে আরও 500 টি খাল খননের পরিকল্পনা রয়েছে। এক হাজার খালের খনন কাজ শেষ হলে, আগামী দুই বছরে বন্যা হলেও জল দ্রুত সরে যেতে সক্ষম হবে, এতে ক্ষয়ক্ষতিও হ্রাস পাবে।

তিনি আরও বলেছিলেন, ‘বর্তমান বন্যার পরিস্থিতি দিনকে দিন উন্নতি হচ্ছে, পানি নিচে নেমে যাচ্ছে। পানি উন্নয়ন বোর্ড এক্ষেত্রে আন্তরিকভাবে কাজ করছে।

উল্লেখ্য, পানি উন্নয়ন বোর্ড বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে পানি সম্পদ মন্ত্রকের ১০ লক্ষ গাছ লাগানোর কর্মসূচির অংশ হিসাবে শুক্রবার বরিশালের তালতলী নদীর তীরে এই বৃক্ষরোপণ কর্মসূচির আয়োজন করে। পানি সম্পদ মন্ত্রনালয়ের অতিরিক্ত সচিব মাহমুদুল ইসলাম, পানি উন্নয়ন বোর্ডের মহাপরিচালক এ এম আমিনুল হক, দক্ষিণ পানি উন্নয়ন বোর্ডের প্রধান প্রকৌশলী মো। হারুন অর রশিদ এবং জেলা প্রশাসক এস এম আজিয়ার রহমান উপস্থিত ছিলেন।

এমইউ / এফআর / জেআইএম